নগ্ন হয়ে ঘর মুছে দিয়ে যাবেন মহিলা, খরচ পড়বে ঘণ্টায় প্রায় ৯ হাজার!

ব্রিটেনে নাকি এখন ঘর পরিষ্কার করার লোকের আয় চিকিত্সকদের থেকেও বেশি। চোখ কপালে তোলার মতোই বিষয়, তবে তা আয়ের পরিমাণ নিয়ে নয়, আয়ের পদ্ধতি নিয়ে। আসলে ব্রিটেনে কিছু মানুষ বেশি আয়ের জন্য নতুন পথ খুঁজে বের করেছেন। সেখানে সম্পূর্ণ নগ্ন হয়ে ঘর মুছে দেওয়ার পেশা বেছে নিয়েছেন কয়েকজন।

তিন সন্তানের মা, বছর পঁয়ত্রিশের ক্লেয়ার ও’কনার সম্প্রতি ফেসবুকে একটি বিজ্ঞাপন দিয়েছেন। সেখানে তিনি জানিয়েছেন, সম্পূর্ণ নগ্ন হয়ে ঘর মুছে দেবেন। আর তার জন্য প্রতি ঘণ্টায় দিতে হবে ৯৫ পাউন্ড (ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় আট হাজার ৮১২ টাকা)। তবে আরও অপশন আছে, যদি শুধু শরীরের উপরের অংশ পোশাক বিহীন থাকে তবে তার জন্য দিতে হবে ঘণ্টায় ৮৫ পাউন্ড (ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় সাত হাজার ৮৮১ টাকা)।

আর যদি শুধু অন্তর্বাস বা ফরাসি কাজের লোক (ফ্রেঞ্চ মেড)-এর মতো পোশাকে ঘর পরিষ্কার করাতে চান, তাহলে দিতে হবে ৭৫ পাউন্ড (ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় ছ’ হাজার ৯৫১ টাকা)।

ক্লেয়ার প্রথমে একটি হোটেলে কাজ করতেন। পরে চাকরি ছেড়ে নিজের ব্যবসা করার কথা ভাবেন। নিজের ব্যবসার ভাবনার কথা বলেন স্বামীকে। তিনি প্রথমে ভাবেন স্ত্রী মজা করছেন। কিন্তু তিনি পরে দেখেন ক্লেয়ার সত্যিই এমন ব্যবসা করতে চান। তারপর ক্লেয়ারের স্ত্রীও বিষয়টি মেনে নিয়েছেন। ক্লেয়ারের কম্পানির নাম, ‘ফ্যান্টাসি ক্লিন’।

নগ্ন হয়ে ঘর পরিষ্কার করলেও ক্লেয়ার পরিষ্কার জানিয়েছেন, কারও বাড়িতে কাজে যাওয়ার আগে তাঁর সম্পর্কে খুঁটিয়ে খোঁজ নেন। নিশ্চিত হন সেখানে কোনও অসুবিধায় পড়ার সম্ভাবনা আছে কিনা। যদি সমস্যা তৈরির সম্ভাবনা থাকে তবে সেখানে যাওয়ার কোনও প্রশ্নই নেই।

ক্লেয়ার এটাও জানিয়েছেন, নগ্ন হয়ে ঘর মোছা বা পরিষ্কার মানে শুধু ঘর পরিষ্কার করাই, এর সঙ্গে অন্য কোনও কিছুর সম্পর্ক নেই। এমন কি যে বাড়িতে কাজে যাবেন, সেখানে কেউ তাঁকে স্পর্শ করতে পারবেন না, এমন কি ছবিও তোলা চলবে না। তিনি কাজে যাবেন, কাজ করবেন ফিরে আসবেন, এর মাঝে ‘অন্য কিছু’ নয়। ব্রিটেনের সংবাদপত্র মিরর জানিয়েছে, শুধু এই মহিলাই নয়, অনেক পুরুষও এই পেশায় আসছেন।