কঙ্গনার পরম ভক্ত! প্রিয় অভিনেত্রীর জন্য শিবসেনার সাংসদকে হুমকি দেওয়ায় গ্রেফতার কলকাতার ছেলে

চলতি সপ্তাহের প্রথম থেকেই কঙ্গনা রানাউত আর শিবসেনার বাগবিতন্ডায় উত্তপ্ত গোটা মহারাষ্ট্র। মুম্বাইয়ের সিনেমা মাফিয়া থেকে মাদক চক্র কোনোকিছু নিয়েই বলতে ছাড়েনি বলিউড ক্যুইন কঙ্গনা রানাউত। এরপরেই শিবসেনার সঙ্গে একের পর এক ঝামেলায় জড়িয়ে পড়েন কঙ্গনা।

রাতারাতি তার অফিস ভেঙ্গে গুড়িয়ে দিয়েছে বিএমসি, মুম্বাই সরকারের যুক্তি এই সম্পত্তি ছিলো বেআইনি। আর এই টাল বাহানার মাঝেই ঘটলো আরেক বিপত্তি। শিবসেনার সাংসদ সঞ্জয় রাউতকে ফোনে হুমকি দেওয়ার অভিযোগে কলকাতার এক বাসিন্দাকে গ্রেফতার করলো মুম্বই পুলিশ। ইতিমধ্যেই তাঁর বিরুদ্ধে দেশদ্রোহিতার অভিযোগ করা হয়েছে।

কলকাতার ওই বাসিন্দা পলাশ বসু পেশায় একজন জিম প্রশিক্ষক। সূত্রের খবর কঙ্গনার সাথে এই ঘটনার পর এদিন পলাশ সঞ্জয় রাউতকে ফোন করেন। এমনকি ফোন করে কঙ্গনার বিরুদ্ধে কথা বলার জন্য হুমকি দিতে থাকেন।আর এই ঘটনার পরই পলাশের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নেয় মুম্বাই পুলিশ। পলাশের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহিতার মামলাও রুজু করা হয়েছে। শুক্রবার আলিপুর আদালতে তাঁকে পেশ করে ট্রানজিট রিমান্ড চাইবে মুম্বই পুলিশ।

কিন্তু বিচারক ট্রানজিট রিমান্ডের অনুমতি না দিলেও পলাশকে মুম্বই নিয়ে যেতে চাইছে মুম্বাই পুলিশ। এমনকি পুরো ঘটনাটা ইতিমধ্যেই খতিয়ে দেখতে শুরু করেছে পুলিশ।কিন্তু এই ঘটনার পর পলাশের পারিবারিক আইনজীবীদের অভিযোগ, কঙ্গনার ভক্ত নন পলাশ বসু। আর শিবসেনার সাংসদ সঞ্জয় রাউতের মতো প্রভাবশালী লোকের ফোন নম্বর পাওয়াও খুব মুশকিল। তাই এই ফোন করা অস্মভব ব্যপার। পলাশকে সরাসরি ফাঁসানো হচ্ছে আর কিছুই না।