এই ব্লাড গ্রুপের জন্য করোনা সংক্রমণ মারাত্মক, জেনে নিন বিস্তারিত

বিশ্বে করোনার মামলার সংখ্যা বাড়ছে। ভুক্তভোগীর সংখ্যা নিয়ে ছুটে যাওয়ার কোনও উপায় নেই। বিশ্বে করোনার মামলার সংখ্যা ৭০ লক্ষের দোরগোড়ায়। এই মুহুর্তে মোট ভুক্তভোগীর সংখ্যা ৬৬ লক্ষ ৯৮ হাজার ৩৭০ জন। মৃত্যুর সংখ্যাও বেড়েছে। সর্বশেষ সংবাদ অনুসারে, বিশ্বে মৃত্যুর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩ লক্ষ ৯৩ হাজার ১৪২ টি। করোনার প্রতিরোধে বিভিন্ন গবেষণা চলছে বিজ্ঞানীরা ওষুধ তৈরিতে দিন-রাত কাজ করছেন যদিও মাঝে মাঝে আশার আলো দেখা যাচ্ছে, এখনও কিছু নিশ্চিত হয়নি। বিশ্বের বিভিন্ন দেশে এই ভাইরাস নিয়ে বিভিন্ন গবেষণা চলছে। এবার রক্তের গ্রুপের সামনে শ্বাসকষ্ট সম্পর্কে একটি নতুন তথ্য। এই গবেষণায় সামনে এসেছে কোন ব্লাড​গ্রুপের ব্যক্তিরা করোনা আক্রান্ত হলে নিঃশ্বাসের সমস্যা হওয়ার সম্ভাবনা বেশি আর কোন ব্লাড গ্রুপের ঝুঁকি কম।

করোনাভাইরাস সংক্রমণ সাধারণত রোগীদের ফুসফুসকে প্রভাবিত করে। যে কারণে আক্রান্ত ব্যক্তিকে শ্বাস নিতে আরও অনেক সমস্যার মুখোমুখি হতে হয়। অনেক সময় পরে সেই কারণে আক্রান্তের মৃত্যু হয়। একটি নতুন গবেষণায় দাবি করা হয়েছে যে রক্তের গ্রুপের উপর নির্ভর করে, কোন রোগীদের শ্বাসকষ্ট হবে এবং কাদের কম হবে। নিউজ মেডিক্যাল লাইফ সায়েন্স ওয়েবসাইট অনুযায়ী, ইতালি ও স্পেনের হট স্পট অঞ্চলের ১৬০০ রোগী নিয়ে এই গবেষণা করা হয়েছে। স্টাডিতে দেখা গিয়েছে, মূলত A+ ব্লাড গ্রুপের ব্যক্তিরা করোনায় সংক্রামিত হলে নিঃশ্বাসের সমস্যায় ভুগবেন। যাঁদের রক্তের বিভাগ O+, রোগীদের ক্ষেত্রে এই ঝুঁকি কম। বেশিরভাগ রোগীরা শ্বাসকষ্টের কারণেই মারা গিয়েছেন, এমনই বলছেও ডাক্তারদ্যার গবেষণা।

পূর্ববর্তী গবেষণায় দেখা গেছে যে A ব্লাড গ্রুপের রক্তের ব্যক্তিরা করোনায় আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকে। যাঁদের রক্তের বিভাগ O, তাঁরা করোনাকে রোধ করতে পেরেছেন বেশি৷ ইউহান বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষক ওয়্যাং শিনঘুয়ানের নেতৃত্বে ওই স্টাডি করা হয়৷ তিনি লিখছেন, ‘এ’ ব্লাড গ্রুপের মানুষদের বেশি করে সচেতন থাকতে হবে৷ দেখা যাচ্ছে, এই ব্লাড গ্রুপের ব্যক্তিদের চটজলদি করোনা আক্রান্ত করছে৷ সার্স, করোনা, দুটির ক্ষেত্রেই দেখা গিয়েছে, এ ব্লাড গ্রুপে চিন্তার৷ সেখানে O ব্লাড গ্রুপের মানুষরা অনেক কম আক্রান্ত৷ দেখা যাচ্ছে, তাঁরা করোনাকে রোধ করে দিচ্ছে৷’