নিউজবিনোদন

মাদক উদ্ধার হল দীপিকা পাড়ুকোনের ম্যানেজার বাড়ি থেকে, বিপাকে অভিনেত্রী

সুশান্তের মৃত্যুর পর থেকেই একের পর এক নতুন তথ্য উঠে এসেছিল এনসিবি অথবা কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থার হাতে। এবার ফের মাদক মামলায় নতুন একটি প্ল্যান করতে চলেছেন নারকটিকস কন্ত্রল বিউরো। সম্প্রতি রিপোর্টে প্রকাশ হয়েছে যে,দীপিকার ম্যানেজার কারিশমা প্রকাশের বাড়ি থেকে উদ্ধার করা গেছে ব্যাপক আকারের মাদক।এরপরই তার বাড়ির দরজায় একটি নোট ধরিয়ে দেওয়া হয়। যদিও যখন তার বাড়িতে তল্লাশি করা হয়েছিল তখন কারিশমা কোথায় ছিলেন, সে বিষয়ে কিছু জানা যায়নি। এমনকি অভিনেত্রী এই মুহূর্তে কোথায় রয়েছেন, তাও জানা যায়নি বলে খবর পাওয়া গেছে।

পাশাপাশি ঠিক কত পরিমাণ মাদক উদ্ধার করা হয়েছে কারিশমা প্রকাশের বাড়ি থেকে, সে বিষয়ে খুব তাড়াতাড়ি বিস্তারিত কথা বলবেন এনসিবি।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, মাদক মামলায় জড়িত থাকার কারণে গ্রেফতার করা হয়েছিল রিয়া চক্রবর্তী এবং তার ভাই সৌভিক চক্রবর্তী কে। এরপর রিয়া চক্রবর্তী জেরার মুখে পড়ে বহু অভিনেতাদের নাম সকলে সামনে আনেন। তার বয়ান এর ভিত্তিতেই সমন পাঠানো হয়েছিল দীপিকা পাডুকন, সারা আলি খান কে। তবে জেরা করার সময় দীপিকা পাডুকোন,সারা আলি খান অথবা শ্রদ্ধা কাপুরের দাবি করেন যে তারা কখনও মাদক সেবন করেন নি। তারা সিগারেট এর নামকরণ বিভিন্নভাবে করতেন।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য,দীপিকা পাডুকোন এর সঙ্গে ক্যারিশমা প্রকাশ্যে মাদক চ্যাট প্রকাশ্যে আসে ২০১৭ সালে। যেখানে মুম্বাইতে হাজির হবার আগে তারা ব্যবহার করেছিলেন মাল অথবা হ্যাশ কথাটি। এই কথাগুলি তারা বিভিন্ন সিগারেটের কথায় বুঝিয়েছেন। কোন মাদক নয়,ছোট-বড় সিগারেটকে তারা এই ভাবে সম্বোধন করেন বলে দাবি করেছিলেন দীপিকা পাডুকন।

বর্তমানে রিয়া চক্রবর্তী জামিনে ছাড়া পেয়ে গেলেও তার ভাইকে ছাড়েননি এনসিবি। মাদকচক্র বাচ্চাদের ক্ষেত্রে আরো কি কি পদক্ষেপ নিতে চলেছে এনসিবি তা পরবর্তী সময়ে আমরা সকলে জানতে পারবো।

Related Articles

Back to top button