নিউজরাজ্য

করোনার জন্য দূর্গাপুজো বন্ধ হবে না, একাধিক নিয়মবিধি ঘোষনা করলেন মমতা ব্যানার্জি

বিশ্ববাসীর রাতের ঘুম কেড়ে নিয়েছে অজানা এক মৃত্যু ভয়। এই মৃত্যু ভয়ের নাম হল মারণ ভাইরাস করোনা। এই করোনার জেরে সেই মার্চ মাস থেকে বিশ্বের প্রতিটি দেশ লকডাউন ঘোষণা করেছে। এই করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকানোর জন্য ভারতবর্ষে এক একটি করে অনুষ্ঠান বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

তবে এবার করোনার আবহেই অনুষ্ঠিত হতে চলেছে বাঙালি সবথেকে বড় উৎসব দুর্গাপূজা। তবে দুর্গাপুজো অনুষ্ঠিত হলেও থাকছেই বহু নিয়মবীধি। নেতাজি ইন্ডোরের পুজো কমিটির সঙ্গে আজকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জির মিটিং হতে চলেছে। আর এরই মাঝে দুর্গাপূজা অনুষ্ঠিত হবে এমনই নির্দেশ দিলেন স্বয়ং মুখ্যমন্ত্রী। তবে এই বছর দুর্গা পুজোর অনেক নিয়মবিধি বাদ পড়বে আবার যুক্ত হবে অনেক নিয়ম। এই বছর রাজ্যজুড়ে ৩৭ হাজারেরও বেশি দুর্গাপূজা অনুষ্ঠিত হচ্ছে বলে জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী।

এই বছর দুর্গা পুজোতে কি কি নিয়ম চালু হচ্ছে চলুন এক ঝলকে সেই গুলো দেখে নেওয়া যাক —

১) প্যান্ডেলের চারপাশ অবশ্যই খোলা রাখতে হবে।

২) শারীরিক দূরত্বও বিধি মেনে পুজো প্যান্ডেলে চলাচল করতে হবে। প্রয়োজন হলে দর্শনার্থীদের জন্য গণ্ডি কেটে দেওয়া হবে।

৩) পুজো প্যান্ডেলের এক বা আধ কিলোমিটারের মধ্যে হ্যান্ড স্যানিটাইজার এবং মাস্ক রাখা বাধ্যতা মূলক।

৪) প্রতিটা দর্শনার্থীর মুখে মাস্ক থাকা বাধ্যতামূলক। দর্শনার্থীরা পূজামণ্ডপে ঢোকার আগে অবশ্যই স্যানিটাইজার দিয়ে হাত ধুয়ে তারপর ঢুকতে হবে।

৫) ভীড় এড়ানোর জন্য মণ্ডপের বাহির পথ এবং ভিতর পথ আলাদা করতে হবে।

৬) তৃতীয়া থেকেই শুরু হবে ঠাকুর দেখার পালা চলবে একাদশী পর্যন্ত।

৭) কমিটিগুলোকে দু তারিখের মধ্যে তাদের আবেদনপত্র জমা দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

৮) প্রত্যেকটি মণ্ডপে মণ্ডপে পাবলিক এনাউন্সমেন্ট পদ্ধতি চালু থাকবে। মানুষকে সতর্ক করবার জন্য মাইকে বারংবার সতর্কতামূলক বার্তা প্রদান করা হবে।

এবার পুজোর জন্য যে নিয়মগুলি বাতিল করা হবে
১) রেড রোডের পুজোর কার্নিভাল বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। এই কার্নিভাল বন্ধের বার্তা দিতে গিয়ে মুখ্যমন্ত্রী বলেছেন পরের বছর খুব ভালো করে কার্নিভাল করা হবে।

২) একসঙ্গে অঞ্জলি দেওয়া থেকে সিঁদুর খেলা বন্ধ রাখা হয়েছে এই বছরের জন্য। সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে সিঁদুর খেলা ও অঞ্জলি দেওয়ার জন্য কয়েকজন মিলে গোষ্ঠীতে ভাগ করে দেওয়া হবে।

৩) বন্ধ থাকছে পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান। বিশ্ববাংলা তাদের পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান ভার্চুয়ালই সেরে ফেলবেন।

Related Articles

Back to top button