প্রথম শ্রেণী থেকে অষ্টম শ্রেণী পর্যন্ত সবাইকে উত্তীর্ণ করার নির্দেশ শিক্ষামন্ত্রীর

প্রথম শ্রেণী থেকে অষ্টম শ্রেণী পর্যন্ত সবাইকে উত্তীর্ণ করার নির্দেশ শিক্ষামন্ত্রীর । করোনার দাপটে আপাতত বন্ধ রয়েছে সমস্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। তার জেরেই এবার প্রথম শ্রেণী থেকে অষ্টম শ্রেণী পর্যন্ত সকল শিক্ষার্থীকে পরবর্তী শিক্ষাবর্ষে উত্তীর্ণ করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিল রাজ্য শিক্ষা দপ্তর। মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানান শিক্ষামন্ত্রী।

সংক্রমণ ছড়ানোর ভয়ে অন্যান্য রাজ্যের পাশাপাশি পশ্চিমবঙ্গের শিক্ষার্থীদের সুরক্ষার কথা মাথায় রেখে মার্চ মাস থেকেই রাজ্যের সমস্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলো বন্ধ করেছে প্রশাসন। এমনকি মাঝপথে বন্ধ করে দেওয়া হয়েছিল উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা।

অভিভাবকরা চিন্তিত হয়ে পড়েন এই ভেবে যে এতদিন স্কুল বন্ধ থাকলে ফাইনাল পরীক্ষার সিলেবাস কীভাবেই বা শেষ হবে আর কবেই বা পরীক্ষা হবে। এবার তাদের চিন্তা দূর করার জন্য বার্ষিক পরীক্ষা ছাড়াই প্রথম শ্রেণী থেকে অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত সবাইকে পাস করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিল রাজ্য শিক্ষা পর্ষদ। এর আগে সিবিএসসি বোর্ড, পরীক্ষা ছাড়াই সমস্ত শিক্ষার্থীদের পরবর্তী শ্রেণীতে পাস করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়।

এদিন শিক্ষা মন্ত্রী বলেন ‘শিক্ষা দপ্তর সিদ্ধান্ত নিয়েছে, প্রথম শ্রেণী থেকে অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত প্রত্যেক পড়ুয়াকে পরের শ্রেণীতে উত্তীর্ণ করা হবে। কোন ফেল এর ব্যবস্থা থাকবে না। নবম, দশম, একাদশ ও দ্বাদশ শ্রেণীর জন্য শিক্ষা দপ্তর বিশেষ কর্মসূচি নেওয়ার চেষ্টা করছে। যাতে পড়াশোনা অব্যাহত রাখা যায়। ইমেইল ওয়েবসাইট মাধ্যমে এমনকি দূরদর্শনের মাধ্যমে তা করা সম্ভব করা যায় কিনা, তার চেষ্টা করছি। রাজ্য সরকারের অনুমোদনের পর তা কার্যকর করা হবে।’