বিনোদন

ঝিনুক সেনের মৃত্যু, পুজোর আগেই বন্ধ হচ্ছে ‘এখানে আকাশ নীল’, বেজায় মন খারাপ দর্শকদের

ধারাবাহিক ‘এখানে আকাশ নীল’ এর দ্বিতীয় সিজেন ফিরেছিল ছোটপর্দায়। ‘এখানে আকাশ নীল’ ধারাবাহিক টি 2008 সালে খুবই জনপ্রিয় ছিল। ‘এখানে আকাশ নীল’ এর দ্বিতীয় সিজেন শুরু হয়েছিল স্টার জলসার পর্দায় সেই উজান-হিয়ার গল্প নিয়েই। এবারেও টানটান উত্তেজনা ছিল ‘এখানে আকাশ নীল’ ধারাবাহিক এ। উজান ও হিয়ার সফর শেষ হতে পারে পুজোর আগেই।

‘এখানে আকাশ নীল’ এর টিভির পর্দায় শেষ পর্ব দেখা যাবে 3 অক্টোবর। যদিও কিছুই জানানো হয়নি চ্যানেলের তরফ থেকে। ধারাবাহিক ‘ওগো নিরুপমা’ আসছে ‘এখানে আকাশ নীল’ এর পরিবর্তে এমনটাই শোনা যাচ্ছে।

সবকিছু সময়মতো শেষ না হলে আকর্ষণ হারায় জানালেন গল্পের নায়িকা হিয়া। ধারাবাহিকটি শেষ হতে চলেছে সেই কথা মতন, তবে পুজোর আগেই ধারাবাহিকটি শেষ হয়ে যাবে তা মানতে পারছেন না দর্শকরা। বিভিন্ন প্রতিক্রিয়া দেখান দর্শকেরা সোশ্যাল মিডিয়া জুড়ে। কেউ কেউ বললেন, “ যে জুটিকে নিয়ে দু’দিন হয়েছে আপনারা এত ‘কনটেস্ট’ করে ফেললেন। এ রকম পপুলার জুটি জলসা আর একটাও বানাতে পেরেছে!! অথচ সেই জুটিকেই শেষ করে দিচ্ছেন!! এখানে আকাশ নীল বন্ধ করে দিচ্ছেন!!! দয়া করে এই কাজটি করবেন না।। একটিমাত্র চরিত্রকে দর্শকদের চাপে সরাতে বাধ্য হয়েছেন বলে দর্শকদের উপর প্রতিশোধ নিচ্ছেন।”

‘উজান’ শন বন্দোপাধ্যায়, মুখে কুলুপ আটলাম এই খবর ছড়াতেই। ঝিনুকের এন্ট্রি হয় এই ধারাবাহিকে কয়েক মাস আগেই নতুন চরিত্র হিসেবে। এরপর ফু্ঁসে ওঠেন দর্শকরা প্রতিমা চক্রবর্তীর বিরুদ্ধে। মানুষের মনে জায়গা করে নেয় কিছু সিরিয়াল বা ধারাবাহিক এই লকডাউনে। তাই দর্শকেরা আবেগে জড়িয়ে পড়েন সিরিয়ালের চরিত্র গুলির সঙ্গে, তাই ক্ষোভ আছড়ে পরে প্রযোজনা সংস্থা গুলির উপর।

Related Articles

Back to top button