ভাইরালবিনোদন

শরীরে নামমাত্র পোশাক, উষ্ণ নাচে নেটদুনিয়ায় আগুন ঝরালেন ঝুমা বৌদি, ভাইরাল ভিডিও

হইচই নামক ওয়েব প্লাটফর্মে দুপুর ঠাকুরপো নামে ওয়েব সিরিজটি জনপ্রিয়তা লাভ করেছিল প্রচুর। যৌন আবেদনে ভরপুর এই ওয়েব সিরিজের পর পর সেশনের জন্য রীতিমতো অপেক্ষা করে থাকত বাঙালি যুবকরা। বৌদি এবং দেওরের দুষ্টু মিষ্টি প্রেম আমরা শিখেছি এই ওয়েব সিরিজ এর মাধ্যমে। শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত শুধুমাত্র যৌন আবেদন দেখানো হয়েছে এই ওয়েব সিরিজ এর মাধ্যমে।

প্রথম দুটি সিরিজে স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায় কে দেখা গেলেও তৃতীয় সিরিজ টিতে দেখা গিয়েছিল মোনালিসাকে। প্রথম দিকে একটু অসন্তুষ্ট হলেও মোনালিসার অসামান্য অভিনয়ে সবকিছু ছাপিয়ে যায়। এই ভোজপুরি নায়িকার বাংলাতে প্রথম পদক্ষেপ হয়েছিল দুপুর ঠাকুরপোর হাত ধরে। নিজের শরীরের যৌন আবেদন এবং সেক্সি ফিগার দেখিয়ে কার্যত সকলের মন জয় করে নিয়েছেন তিনি। স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায়কে সমান ভাবে ব্যাখ্যা দিতে পেরেছিলেন তিনি। শুধু দুপুর নয়, একটি চোখের ইশারাতে রাতে ঘুম উড়িয়ে দিতে পারতেন তিনি।তার পোশাক থেকে শুরু করে শারীরিক অঙ্গভঙ্গি সবকিছুই ছিল চোখে পড়ার মতো।

সিরিজ শেষ হয়ে যাবার পরেও সোশ্যাল মিডিয়াতে তার জনপ্রিয়তা একটুও কমেনি। বারবার ইনস্টাগ্রামে বিভিন্ন ছবি আপলোড করে নিজের অনুগামীদের মনোরঞ্জন করেন অন্তরা বিশ্বাস। বর্তমানে আরো একটি হিন্দি ধারাবাহিকে অভিনয় করেছেন তিনি। তার প্রিয় হবে হলো নাচ। সম্প্রতি তার পুরনো নাচের ভিডিও ভাইরাল হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়াতে। যেখানে তিনি পাতলা লাল শাড়ি এবং স্লিভলেস ব্লাউজ পড়ে ‘ইয়ে মেরা দিল’ গানের সঙ্গে তালে তালে নেচে উঠেছেন। তার এই যৌন আবেদন দেখে আরো বেশী উত্তপ্ত হয়েছে যুবকরা। শুধুমাত্র নাচ নয়,কখনো বাস্তবে স্নান করে শরীরে হিল্লোল তুলে আবার কখনো স্বামীর সঙ্গে হট প্যান্ট পড়ে আবেদনময়ী ভঙ্গিতে সকলকে তাক লাগিয়ে দিচ্ছেন তিনি।

তার নতুন ছবির জন্য রীতিমতো অপেক্ষা করে থাকেন তার ভক্ত মহল।সিনেমা অথবা সিরিয়াল ছাড়াও কিভাবে ভক্তদের হাতের মুঠোয় রাখা যায় তা খুবই ভাল করে জানেন অন্তরা বিশ্বাস ওরফে ঝুমা বৌদি।

Related Articles

Back to top button