ত্বক উজ্জ্বল করতে হলুদ খুব উপকারী, কিভাবে হলুদের ফেসপ্যাক ব্যবহার করবেন? জেনে নিন

ত্বক উজ্জ্বল করতে হলুদ খুব উপকারী, কিভাবে হলুদের ফেসপ্যাক ব্যবহার করবেন? জেনে নিন

প্রাচীনকাল থেকেই রূপচর্চায় ব্যবহৃত হয়ে আসছে কস্তুরী হলুদ। অনেকেই ভুলবশত রান্নায় ব্যবহৃত হলুদ গুঁড়ো দিয়ে রূপচর্চা করেন কিন্তু এই রান্নায় ব্যবহৃত হলুদ আর রূপচর্চায় ব্যবহৃত হলুদ একেবারেই আলাদা। রূপচর্চায় সঙ্গী করুন ‘কস্তুরী হলুদ’ কে।

১) এক চামচ কস্তুরী হলুদ পাউডার, এক চামচ চন্দন গুঁড়ো, এক চা চামচ লেবুর রস ভালো করে মিশিয়ে নিয়ে মুখে, ঘাড়ে, গলায় ভালো করে লাগিয়ে ঠান্ডা জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

২) এক চামচ কস্তুরী হলুদ পাউডার, এক চামচ টক দই ভালো করে মিশিয়ে নিয়ে ঠান্ডা জলে মুখ ধুয়ে ফেলুন।

৩) এক চামচ মুলতানি মাটি, এক চামচ কস্তুরী হলুদ গুঁড়ো, এক চামচ কফি পাউডার ভাল করে মিশিয়ে নিয়ে, মেখে নিয়ে কিছুক্ষণ পরে ঠান্ডা জলে মুখ ধুয়ে ফেলুন।

৪) এক চামচ কস্তুরী হলুদ গুঁড়ো, এক চামচ চালের গুঁড়ো, এক চামচ কাঁচা দুধ ভালো করে মিশিয়ে নিয়ে স্ক্রাবার হিসাবে ব্যবহার করুন।

৫) বডি পলিশিং এর জন্য ব্যবহার করতে পারেন ‘কস্তুরী হলুদ’। তিন টেবিল চামচ কস্তুরী হলুদ পাউডার, এক চামচ চন্দন গুঁড়ো, এক চামচ গোলাপ ফুলের গুঁড়ো, এক চামচ গ্লিসারিন, দু চামচ নারকেল তেল, এক চামচ চিনি ভাল করে মিশিয়ে নিয়ে সারা শরীরে ঘষে ঘষে লাগিয়ে নিন।

৬) শরীরের কালো অংশ যেমন ঘাড়, কনুই, হাঁটু আন্ডার আর্মস রং কি পরিষ্কার করতে কস্তুরী হলুদ এর জুড়ি মেলা ভার। এক চামচ কস্তুরী হলুদ, এক চামচ লেবুর রস, এক চামচ বেকিং সোডা ভাল করে মিশিয়ে নিয়ে এই সমস্ত অংশে ঘষে ঘষে লাগান। কিছুক্ষণ পরে ঠাণ্ডা জলে ধুয়ে ফেলুন।