রাজ্যনিউজ

দেশের গর্ব, ৩ লক্ষ দেশলাই কাঠি দিয়ে তাজমহল বানিয়ে বিশ্বরেকর্ড গড়ল বাঙালী মেয়ে

এক বাঙ্গালী মেয়ে বিশ্বরেকর্ড গড়লো দেশলাই কাঠি দিয়ে তাজমহলের ছবি বানিয়ে। এই ছবিটি বানানো হয়েছে প্রায় তিন লাখের ওপর দেশলাই কাঠি দিয়ে। ভালো করে লক্ষ্য না করলে ছবিটি সাধারণ ছবি বলেই মনে হবে।

বাঙালি মেয়েটির নাম সহেলি পাল বয়স ২২ বছর। মেয়েটির বাড়ি নদীয়া জেলার কৃষ্ণনগরের ঘূর্ণি এলাকায়। সহেলির বাবা সুবীর পাল ও ঠাকুরদা বীরেন পাল। তাদের দুজনেরই পেশা হলো কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি স্নাতকোত্তর। রাষ্ট্রপতি পুরস্কার প্রাপ্ত সহেলির ঠাকুরদা ও বাবা। সহেলি ঠাকুরদা ১৯৮২ সালে পুরস্কার পান এবং তার বাবা ১৯৯৯ সালে রাষ্ট্রপতি পুরস্কার পান। ভবিষ্যতে এই কাজে এগিয়ে যেতে চান এমনটিই জানিয়েছে সহেলি।

তিনি আগস্ট মাসে এই কাজটি শুরু করেন গ্রিনিজ বুক অফ ওয়ার্ল্ড রেকর্ডস কর্তৃপক্ষের নির্দেশিকার গাইডলাইনস পাওয়ার পরে। সহেলি এই ছবিটি বানিয়েছে মূলত ছয় ফুট বাই চার ফুট কার্ডবোর্ডের ওপর। এবং এই ছবিটি তৈরি করতে সে দু’রকম রঙের দেশলাই কাঠি ব্যবহার করেছে। সহেলি কাজটি শেষ করে ৩০ শে সেপ্টেম্বর। তার কাছ থেকে জানা গেছে এই কাজের একটি ভিডিও খুব শীঘ্রই আসতে চলেছে।

এটিই প্রথম নয় ২০১৮ সালে তিনি মাটি দিয়ে বিশ্বের সবথেকে ছোট দুর্গা ঠাকুর বানিয়ে বিশ্বরেকর্ড গড়েছেন। সেই মাটির প্রতিমাটির ওজন ছিল ২.৩ গ্রাম এবং দৈঘ্য ২.৫৪ সেন্টিমিটার, প্রস্থ ১.৯৩ সেন্টিমিটার এবং উচ্চতা ছিল ০.৭৬ সেন্টিমিটার।

সহেলির আগে ইরানের মেয়সাম রহমানির নামে দেশলাই কাঠি দিয়ে তৈরি ছবির বিশ্ব রেকর্ডটি ছিল। ২০১৩ সালে তিনি ইউনেস্কোর লাগো ছবিটি ১ লাখ ৩৬ হাজার ৯৫১টি দেশলাই কাঠি দিয়ে বানিয়ে ছিলেন।

Related Articles

Back to top button