মুখ্যমন্ত্রীর খোলা রাখার নির্দেশ দিলেও বন্ধ কুচবিহারে মিষ্টির দোকান

কোচবিহার: সরকারি তরফে মিষ্টির দোকান খোলার নির্দেশ দিলেও এর বিপরীত চিত্র দেখা যাচ্ছে কুচবিহারে। করোনার জেরে 21 দিনের লকডাউন চলছে দেশে। নিত্য সামগ্রিক ও জরুরী পরিষেবা বাদে অন্যান্য দোকান গুলোর মতই বন্ধ হয়ে যায় মিষ্টির দোকান। ফলে মিষ্টির কারিগর ও শ্রমিকরা বাড়ি চলে যায়।

এর মধ্যেই গতকাল মুখ্যমন্ত্রী মিষ্টির দোকান খোলার নির্দেশিকা জারি করেন। কিন্তু আতঙ্কে কারিগররা আসবেন না বলে জানিয়ে দেয় মালিক কে। ফলে সরকারি নির্দেশে 12 টা থেকে বিকেল চারটা পর্যন্ত মিষ্টির দোকান খোলার নির্দেশ থাকলেও কারিগরের অভাবে বন্ধ রয়েছে প্রায় সব মিষ্টির দোকান গুলো।

[আরও পড়ুনঃ বাড়বে না লকডাউন এর দিন সংখ্যা, সাফ সাফাই কেন্দ্রের]

ব্যবসায়ীদের অনেকেই মনে করছেন সরকারি তরফে যে সময় দোকান খোলার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে সেই সময় বিক্রি হয় পরোটা সিঙ্গারা। যেগুলো মূলত শ্রমিক, ব্যবসায়ী খায়। ফলে এইসময়ে সমস্ত কিছু বন্ধ থাকায় লোকসানে পড়তে পারে মিষ্টির দোকান গুলো।