উঠতি অভিনেত্রীর মৃত্য়ুতে ঘনাচ্ছে রহস্য

তিনি ক্রাইম পেট্রোল থেকে লাল ইস্ক, মেরি দুর্গা পর্যন্ত বেশ কয়েকটি জনপ্রিয় সিরিয়ালে হাজির হয়েছেন। কেবল ২৫ বছর বয়সী টেলিভিশনের বিশ্বে নিজের নাম তৈরি করেছিলেন। সেই উদীয়মান অভিনেত্রী প্রেখা মেহতার আত্মহত্যা নিয়ে ইতিমধ্যে বেশ কয়েকটি প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে।

একটি সংবাদমাধ্যমের সাক্ষাত্কারে প্রকাশের বাবা বলেছিলেন যে লকডাউনের জন্য তাঁর মেয়ে ক্রমশ বিরক্ত হচ্ছে। সংবাদে যখনই কোনও লকডাউনের খবর প্রদর্শিত হয়েছিল বা মুম্বইয়ে লকডাউন প্রসারিত হয়েছিল, তখনই মন ভেঙে যায় প্রেক্ষার। তবে, তার বাবা সবসময় তাকে বলেছিলেন যে এই পরিস্থিতি বদলে যাবে। যদিও তিনি বুঝতে চাননি, অভিনেত্রীর বাবা বলেছিলেন যে প্রেক্ষা এমন সিদ্ধান্ত নেবেন সে ভাবতে পারেননি তিনি।

তা ছাড়া বিয়ের আগে রুপালি পর্দায় নিজের নাম, খ্যাতি এবং প্রতিপত্তি তৈরি করতে চেয়েছিলেন প্রেক্ষা। যে কারণে এই মুহূর্তে তার বিয়ে করবে না সে। তিনি তার বাবাকে আরও বলেছিলেন যে পরের ২-৩ বছর পরই তিনি বিয়ে করবেন। এ কারণেই তারা কখনও তাদের মেয়েকে বিয়ে করতে বাধ্য করেনি, প্রেক্ষার বাবা দাবি করেছেন। তবে সুইসাইড নোটে কেন প্রেক্ষা স্বপ্ন ভেঙে যাওয়ার কথা বললেন, তা কিছুতেই বোধগম্য না বলেও জানান ওই ব্যক্তি।

মৃত্যুর আগে, তিনি তার ইন্সটা হ্যান্ডেলে বলেছিলেন, সব কিছু ঠিক করার জন্য তিনি গত ২-৩ বছর ধরে অনেক চেষ্টা করেছেন কিন্তু সে পারবেন না। প্রতিভাবান টেলিভিশন অভিনেত্রী তার সামাজিক হ্যান্ডেলে শেয়ার করেছিলেন যে ভাঙা স্বপ্ন নিয়ে বেঁচে থাকা কখনই সম্ভব নয়। মৃত্যুর আগে তিনি কেন এই জাতীয় কথা লিখেছিলেন, এখন পুলিশ সেই উত্সটিতে খোঁড়াখুঁড়ি শুরু করেছে।