শুরু হয়ে গেল যুদ্ধ? লাদাখ সীমান্তে ৫০ হাজার সেনা মোতায়েন করলো চিন

ক্রমেই লাদাখ সীমান্তে উত্তেজনা বাড়ছে। লাদাখে নিজেদের শক্তি বাড়িয়ে নিচ্ছে চীন। তবে এবার দেশের সীমান্ত রক্ষা করার জন্য যে কোনো দিক থেকে প্রস্তুত থাকতে হবে। রক্ষা করতে হবে দেশের সীমান্তকে। লাদাখে মোতায়েন কম্যান্ডারদের স্পষ্ট নির্দেশ দিলেন ভারতীয় সেনা। সেনা হাই কম্যান্ড প্রত্যেককে প্রস্তুত থাকার জন্য নির্দেশ দিয়েছেন। সূত্রের খবর অনুযায়ী জানা গেছে, এই মুহূর্তে লাদাখ সীমান্তে প্রায় ৫০ হাজার লালফৌজ মোতায়েন আছে। সেই সঙ্গে রয়েছে ট্যাঙ্ক, সাঁজোয়া গাড়ি-সহ যাবতীয় আধুনিক যুদ্ধের অস্ত্রশস্ত্র।

সূত্রের খবর, লাদাখের এলএসি বরাবার বিপুল সংখ্যক সেনা মোতায়েন করতে শুরু করেছে চীন। লাল ফৌজ হোটান বায়ুসেনা ঘাঁটিতে জে-২০ ফাইটার জেট সহ একাধিক যুদ্ধ বিমান জড়ো করেছে বলে জানা গেছে। এই চীনাঘাঁটি লাদাখের প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখা থেকে মাত্র ৩১০ কিলোমিটার দূরে অবস্থান করছে।

গত ১ সেপ্টেম্বর চীনা সেনারা প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখার রেচিন লা-র কাছে এক ব্যাটালিয়ন সেনা মোতায়েন করেছে। এছাড়া পাঙ্গুর লেকের কাছাকাছি আরও ২ ব্যাটালিয়ন সেনা মোতায়েন করেছে চীন। এছাড়াও সোমবার রাতে পূর্ব লাদাখে প্যাংগং লেকের দক্ষিণে চুশুলের মুরখিতে ঢোকার চেষ্টা করেছিল চীনা সেনা। যদিও তা সফল হতে দেয়নি ভারতীয় সেনা। এবারও কোনোরকম ভাবে ভারত পিছু হটছে না। চীনের বিরুদ্ধে লড়াই করার জন্য সর্বদা প্রস্তুত আছে ভারতীয় সেনা।