Topless হয়ে হিরোর সঙ্গে চরম ঘনিষ্ঠতা, নেটদুনিয়ায় সমালোচনার শিকার হন অভিনেত্রী স্বস্তিকা মুখার্জি

একজন ভারতীয় বাঙালি মডেল তথা অভিনেত্রী হলেন স্বস্তিকা মুখার্জী। তিনি ভারতীয় জনপ্রিয় অভিনেতা সন্তু মুখোপাধ্যায় এর মেয়ে। টেলিভিশন ধারাবাহিক দেবদাসীতে অভিনয়ের মাধ্যমে তার অভিনয় জীবন যাত্রার সূচনা হয়। এরপর ২০০৩ সালে তিনি বড়পর্দায় আত্মপ্রকাশ করে।

১৯৮০ সালের ১৩ ডিসেম্বর তিনি কলকাতায় জন্মগ্রহণ করেন। নিজের লুক নিয়ে বরাবরই এক্সপেরিমেন্ট করতে ভালোবাসেন অভিনেত্রী। আর সেই এক্সপেরিমেন্ট করা লুকের ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্টও করেন তিনি।

তবে, সেই নিয়ে তাকে কম কটূক্তিও সহ্য করতে হয়না। কিন্তু, অভিনেত্রী সব কিছু তোয়াক্কা করে নিজের প্যাশনকে এগিয়ে নিয়ে চলেছেন। আর তাঁর এই সাহসী মনোভাব ও পদক্ষেপ নেটিজেনদের থেকে প্রশংসা কুড়িয়েছে। তবে, মাঝে মধ্যেই তিনি তার লুক বলুন বা পোশাক সব ক্ষেত্রেই নিন্দুকদের সমালোচনার মুখে পড়েন।

এমনকি ২০১৪ সালে “টেক ওয়ান” ছবিতে তাঁর টপলেস হওয়ার পর ব্যাপক ভাবে সমালোচনার মুখে পড়েছিলেন অভিনেত্রী। অনেকেই তাঁর এই টপলেস হওয়া ও ঘনিষ্ঠ দৃশ্য দেখে তাকে নানান ভাবে ট্রোল করতে থাকে। এমনকি তাঁকে কোণঠাসা করে অভিনয় জগৎ ছাড়ার পরামর্শ ও দেওয়া হয়।

এরপরেও তিনি দমে থাকেননি। তিনি নিজের মতো সমান উদ্যমে কাজ করে চলেছেন। আর তাই অনেকেই তাকে ফেয়ারলেস তকমা দিয়েছেন। তবে, কথায় বলে না কিছু খারাপের মধ্যে কিছু ভালো থাকে আর তেমনই কিছু মানুষ তার বিরুদ্ধে গেলেও অনেকেই তার পক্ষে সওয়াল করেছেন। তাঁদের মতে ছেলেরা যদি শার্টলেস হয়ে অভিনয় করতে পারে এমনকি সেই নিয়ে যদি কারোর কোনো মাথাব্যথা না হয় তাহলে মেয়েদের বেলায় দোষ কোথায়।

  1. তবে, অভিনেত্রী অন্যায়ের বিরুদ্ধে সব সময়ই সোচ্চার থাকেন। এই লড়াকু, সাহসী মহিলা নিজের জীবনপথে নিজের মন্ত্রেই এগিয়ে চলেছেন। কোনো সমস্যাই তার যাত্রাপথে বাঁধা হয়ে দাঁড়াতে পারেনি আর পারবে বলেও মনে হয়না।