নিউজবিনোদন

কেন টুইটার ও ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্ট ডিলিট করেছিলেন সুশান্তের দিদি? সামনে এল বিস্ফোরক তথ্য

আজ প্রায় চার মাস হয়ে গেল সুশান্ত সিং রাজপুত আমাদের মধ্যে নেই। শ্বেতা সিং কীর্তি তাঁর টুইটার ও ইনস্টাগ্রাম একাউন্ট ডিলিট করে দেয় গতকাল। নেটিজেনদের মধ্যেই খুবই কৌতুহল দেখা গেছে কেন শ্বেতা সিং সোশ্যাল হ্যান্ডেল গুলো ডিলিট করেন তা জানার জন্য। তবে সুশান্তের দিদি, কেন এই কাজ করতে বাধ্য হয় তা জানিয়েছেন।

শ্বেতা সোশ্যাল মিডিয়ায় ফিরেই পোস্ট করেন লেখেন, “দুঃখিত, আমার সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্টগুলিতে একাধিক জায়গা থেকে লগইন করার চেষ্টা হচ্ছিল, তাই তাদের নিষ্ক্রিয় করতে হয়েছিল।”

শ্বেতা সিং কীর্তি, সুশান্তকে ন্যায় বিচার পাইয়ে দিতে সব থেকে বেশি সবর হন পুরো পরিবারের সদস্যদের মধ্যে। শ্বেতা সিং কীর্তিকে প্রত্যেক দিনই সোশ্যাল মিডিয়ায় কোনো না কোনো পোস্ট করতে দেখা গেছে। তিনি ক্রমাগত মুখ খুলেছেন সুশান্তকে নিয়ে। সোশ্যাল মিডিয়ার ভালো খারাপ দুটো দিকই আছে। শ্বেতা সিং সোশ্যাল মিডিয়ার ভালো দিককে কাজে লাগিয়েছিলেন সুশান্তের ন্যায়বিচারের জন্য।

গত ১৪ ই অক্টোবর সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর ৪ মাস পূর্ণ হয়। এই ৪ মাস পূর্তিতে শ্বেতা সিং কীর্তি একটি অদেখা দেখা ভিডিও শেয়ার করেন। ভিডিওটি মূলত প্রয়াত অভিনেতা সুশান্তের ছিল। ভিডিওটির ক্যাপশন দেওয়া হয়, ”সত্যিকারের অনুপ্রেরণা #দিয়েছিলেন ইম্মোর্টাল সুশান্ত (অমর সুশান্ত”। গতকাল কীর্তি জানিয়েছেন #মনকীবাত ফর এসএস আর-এর প্রচারে একটি অনুষ্ঠানের কথা। তিনি ১৪ ই অক্টোবর প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে বার্তা রেকর্ড করে পাঠানোর জন্য অনুরাগীদের কাছে অনুরোধ করেন। এমনকি সুশান্তের ছবিটি জ্বলজ্বল করছে পোস্টটিতে। তবে তিনি এখনো সঠিকভাবে জানাতে পারেননি যে কবে এই অনুষ্ঠানটি।

Related Articles

Back to top button